1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : editor :
  3. [email protected] : moshiur :
বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৮:০৬ অপরাহ্ন

সায়দাবাদ টার্মিনাল কাঁচপুরে যাবে ফেব্রুয়ারিতে

মহানগর রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ৯ আগস্ট, ২০২৩
  • ৫৩ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, আগামী বছরের ফেব্রুয়ারি নাগাদ কাঁচপুর আন্তঃজেলা বাস টার্মিনালের প্রাথমিক কার্যক্রম শুরু হবে। তখন থেকে সায়দাবাদ টার্মিনালের সব কার্যক্রম কাঁচপুর থেকে পরিচালনা করা হবে। যেসব পরিবহন এখন সায়েদাবাদ টার্মিনাল ব্যবহার করছে, ফেব্রুয়ারি থেকে কাঁচপুর আন্তঃজেলা টার্মিনাল ব্যবহার করবে।

বুধবার (৯ অগাস্ট) কাঁচপুরে ঢাকা নগর আন্তঃজেলা বাস টার্মিনাল নির্মাণকাজের উদ্বোধন শেষে তিনি কথা জানান।

মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেন, প্রাথমিক পর্যায়ে এখানে মাটি ভরাট, সীমানা প্রাচীর নির্মাণ, বাস ঢোকা ও বের হওয়া এবং শ্রমিকদের থাকার ছাউনির ব্যবস্থা করা হবে। প্রাথমিক পর্যায়ের এ কার্যক্রম বাস্তবায়নে ২৮ কোটি টাকা ব্যয় হবে। আমরা আশাবাদী, আগামী ছয় মাসের মধ্যেই প্রাথমিক পর্যায়ের কাজ শেষ হয়ে যাবে। অর্থাৎ ফেব্রুয়ারি নাগাদ ঢাকা নগর আন্তঃজেলা বাস টার্মিনালের কার্যক্রম শুরু করতে পারব। সেই লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে আমরা আজকে এ কাজ শুরু করছি।

ডিএসসিসি মেয়র বলেন, কাঁচপুরে ঢাকা নগর আন্তঃজেলা বাস টার্মিনালসহ অন্যান্য টার্মিনালগুলোর নির্মাণ সম্পন্ন হলে সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালটি শুধু ‘শহরের অভ্যন্তরে চলাচল করা নগর পরিবহন’ এর বাসগুলোর টার্মিনাল হিসেবে ব্যবহৃত হবে।

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির মহাসচিব খন্দকার এনায়েত উল্লাহ বলেন, ঢাকা শহর থেকে পর্যায়ক্রমে টার্মিনালগুলো সরাতে হবে। এটি সে কার্যক্রমেরই প্রথম উদ্যোগ। এই শহরটা, এই দেশটা আমাদের সবার। এখানে টার্মিনাল নির্মাণ হলে, মেয়র যে জেলাগুলোর কথা বললেন, সেসব জেলার গাড়িগুলো এখান থেকেই পরিচালিত হবে। এ ব্যাপারে আমরা সর্বোচ্চ সহযোগিতা দেবো ইনশাআল্লাহ।

ঢাকা পরিবহন সমন্বয় কর্তৃপক্ষের নির্বাহী পরিচালক সাবিহা পারভীন সাংবাদিকদের বলেন, সায়দাবাদ আন্তঃজেলা বাস টার্মিনালে ১৬ জেলার ১১ হাজার বাস আসা-যাওয়া করে। এই বাসগুলো যদি ঢাকা মেট্রোপলিটন সিটির ভিতরে না ঢুকে, তাহলে আমাদের ৩০ শতাংশ যানজট কমে যাবে। এটা আমাদের জন্য এক বিরাট মাইলফলক হবে।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান, সচিব আকরামুজ্জামান, পরিবহন মহাব্যবস্থাপক মো. হায়দর আলী, প্রধান প্রকৌশলী আশিকুর রহমান, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী কাজী বোরহান উদ্দিন, ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সভাপতি আজমল উদ্দিন আহমেদ, স্থানীয় কাঁচপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন প্রমুখ।

এই সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: সিসা হোস্ট