1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : editor :
  3. [email protected] : moshiur :
মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ০৭:৫১ পূর্বাহ্ন

কে হচ্ছেন ২২তম রাষ্ট্রপতি, জানা যাবে আজই!

মহানগর রিপোর্ট :
  • প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩
  • ৩৬৩ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

দেশের ২২তম রাষ্ট্রপতি কে হচ্ছেন, তা জানা যেতে পারে আজ (মঙ্গলবার)। সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় সংসদীয় দলের বৈঠক ডেকেছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। জাতীয় সংসদে সরকারি দলের সভাকক্ষে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। বৈঠকে সভাপতিত্ব করবেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সংসদ নেতা শেখ হাসিনা। সরকারি দলের সংসদ সদস্যরা বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন। আওয়ামী লীগের একাধিকসূত্র জানিয়েছে আজকের বৈঠকেই রাষ্ট্রপতি পদে দলীয় প্রার্থী চূড়ান্ত হতে পারে।

আগামী ২৪ এপ্রিল বর্তমান রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের মেয়াদ শেষ হবে। ১৯ ফেব্রুয়ারি দেশের ২২তম রাষ্ট্রপতি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ১২ ফেব্রুয়ারি রাষ্ট্রপতি পদে নির্বাচন কমিশনে মনোনয়নপত্র জমা দিতে হবে। পরদিন ১৩ ফেব্রুয়ারি মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই করা হবে। একাধিক প্রার্থী থাকলে ১৯ ফেব্রুয়ারি জাতীয় সংসদে ভোট হবে। সংসদ সদস্যরা ভোট দিয়ে রাষ্ট্রপতি নির্বাচন করে থাকেন।

সংবিধান অনুযায়ী, সংসদ সদস্যরা রাষ্ট্রপতি পদে ভোট দিবেন। আর রাষ্ট্রপতি পদে প্রার্থীর সমর্থক ও প্রস্তাবক হন সংসদ সদস্যরা। বিরোধী দল জাতীয় পার্টি প্রার্থী দেবে না বলে এরই মধ্যে জানিয়েছে। আর সংসদে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা থাকায় আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীই নির্বাচিত হবেন। তাই আজকের বৈঠকে দলীয় প্রার্থী চূড়ান্ত করার পাশাপাশি প্রস্তাবক ও সমর্থক কারা হবেন, সেটাও চূড়ান্ত করা হতে পারে।

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও সংসদ উপনেতা মতিয়া চৌধুরী বলেছেন, মঙ্গলবার আওয়ামী লীগের সংসদীয় দলের বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। সেখানেই রাষ্ট্রপতি পদে আমাদের দলের প্রার্থী ঠিক করার বিষয়টি আসতে পারে। তবে রাষ্ট্রপতি কে হতে পারেন, সে বিষয়ে তিনি কিছু বলেননি।

গত রবিবার সচিবালয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে নিজের রাষ্ট্রপতি পদে কোনো আগ্রহ নেই কিংবা কোনো প্রস্তাবও পাননি বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে আওয়ামী লীগের মধ্যে তোড়জোড় নেই কেন? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, রাষ্ট্রপতি নির্বাচন তোড়জোড়ের ব্যাপার নয়, সময়মতো আমরা আমাদের প্রার্থিতা ঘোষণা করব। এটা নিয়ম অনুযায়ী হবে। সংসদীয় দলের প্রধান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আছেন, তিনিই এ বিষয়ে চিন্তাভাবনা করছেন। সময়মতো জানতে পারবেন। রাজনীতিবিদদের মধ্যে থেকে, নাকি অরাজনৈতিক কাউকে রাষ্ট্রপতি করা হবে? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘বাইরে না, পলিটিশিয়ান- সেটা তো আমি এ মুহূর্তে বলতে পারছি না। এটা কয়েক দিনের মধ্যেই পরিষ্কার হয়ে যাবে।

এদিকে আওয়ামী লীগ থেকে রাষ্ট্রপতি পদে কাকে সমর্থন দেয়া হবে, এ নিয়ে দলীয় কোনো ফোরামেই আলোচনা হয়নি। আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ বিষয়ে কারো সঙ্গে কোনো কথাও বলেননি। তবে দেশের গণমাধ্যমসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কয়েক জনের নাম শোনা যাচ্ছে। যদিও এসবের কোনো ভিত্তি নেই। যা লেখা হয় তা সম্ভাব্য। আজকের বৈঠকে জানা যাবে, কে হচ্ছেন রাষ্ট্রপতি।

আলোচনায় যারা : এদিকে গত কয়েক দিন ধরে রাষ্ট্রপতি পদে যাদের নাম আলোচনায় আছে, তারা হলেন- আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য ও প্রধানমন্ত্রীর অর্থনৈতিক বিষয়ক উপদেষ্টা ড. মসিউর রহমান, সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, দিনাজপুরের সংসদ সদস্য সাবেক মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার, সাবেক প্রধান বিচারপতি খায়রুল হক, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য আ আ ম স আরেফীন সিদ্দিক।

এদিকে শেষ পর্যন্ত তিনটি নাম জোরালো আলোচনায় এসেছে। তাদের মধ্যে একজন হলেন ড. মশিউর রহমান। যিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পিএস হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। এছাড়া সরকারের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করে গত কয়েক দশক ধরে আওয়ামী লীগের সঙ্গে সম্পৃক্ত রয়েছেন। বর্তমানে তিনি আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অর্থনৈতিক বিষয়ক উপদেষ্টা হয়েছেন। তাকে রাষ্ট্রপতি পদে দেখা যেতে পারে বলে অনেকের মত।

আলোচনায় আছে আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেনের নামও। তিনি সাবেক মন্ত্রী। ছয়বার চট্টগ্রাম থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। আগামী নির্বাচনে তিনি আর প্রার্থী হবেন না বলে দলীয় প্রধানকে জানিয়েছিলেন। আওয়ামী লীগের ২২ তম জাতীয় সম্মেলনে তাকে জেষ্ঠ্য সভাপতিমন্ডলীর সদস্য করা হয়েছে। একজন পোড় খাওয়া রাজনীতিক হিসেবে তাকেও এ পদে মনোনয়ন দিতে পারে আওয়ামী লীগ।

নতুন করে আলোচনায় এসেছেন দিনাজপুরের সংসদ সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান ফিজারের নাম। তিনি জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। এই আসন থেকে ছয় বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন। আওয়ামী লীগ সরকারের একাধিকবার তিনি মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেছেন। তারও সম্ভাবনা রয়েছে এই পদে।

এছাড়া স্পিকার শিরিন শারমিন চৌধুরীর নাম অনেক আগে থেকেই জোরালো আলোচনায় রয়েছে। সংসদ পরিচালনায় অভিজ্ঞ ব্যক্তি হিসেবে তার জুড়ি নেই। তাকেও এই পদে মনোনয়ন দেয়া হতে পারে। তবে সবকিছুই নির্ভর করবে দলীয় প্রধান শেখ হাসিনার সিদ্ধান্তের ওপর।

জানা গেছে, পরবর্তী রাষ্ট্রপতি পদে কাকে দল মনোনয়ন দেবে, তা একমাত্র প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপর নির্ভর করছে। সরকারি দলের সংসদ সদস্যরা বৈঠকে রাষ্ট্রপতি পদে প্রার্থী ঠিক করার দায়িত্ব সাধারণত দলীয় সভাপতির ওপরেই অর্পন করেন। তিনিই প্রার্থী চূড়ান্ত করবেন। একইসঙ্গে রাষ্ট্রপতি পদে প্রস্তাবক ও সমর্থক কে হবেন তাও জানা যাবে আজ।

এর আগে গত ১২ জানুয়ারি আওয়ামী লীগের সংসদীয় দলের ষষ্ঠ বৈঠক হয়। ওই বৈঠকে মতিয়া চৌধুরীকে সংসদ উপনেতা নির্বাচন করা হয়।

এই সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: সিসা হোস্ট