1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : editor :
  3. [email protected] : moshiur :
বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ০৩:৫৪ অপরাহ্ন

লিটনের মনোনয়নে খুশি রাজশাহীবাসী

মহানগর ডেস্ক :
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২৩
  • ৯৩ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

রাজশাহী সিটি করপোরেনের (রাসিক) নির্বাচনে মেয়র পদে আবারো এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনকে দলীয় মনোনয়ন দেওয়ার খুশি রাজশাহী আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের পাশাপাশি খুশি রাজশাহীবাসীও।

শনিবার দুপুরে রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনকে দলীয় মনোনয়ন দেওয়ার খবরে মৃুহুর্তে সোচ্চার হয়ে উঠে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক। আওয়ামী লীগ নেতাকর্মী থেকে সাধারণ মানুষ সবাই খায়রুজ্জামান লিটনকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। আর দলীয় মনোয়ন দেওয়ায় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছন বর্তমান রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন।

এদিকে শনিবার দুপুরে মনোনয়ন পাওয়ার পর সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করে রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগ। সংবাদ সম্মেলনে মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন উপস্থিত ছিলেন।

তিনি প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে বলেন, এবার রাজশাহীর কর্মসংস্থানে জোর দেবেন তিনি। নগর উন্নয়নের পাশাপাশি কর্মসংস্থানের বিষয়টি সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে নির্বাচনী ইস্তেহার তৈরি করা হবে। আগামী নির্বাচনেও নৌকার পক্ষে তিনি নেতাকমীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান জানিয়েছেন।
সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে খায়রুজ্জামান লিটন ‘বিএনপিকে এই ভোটে অংশ নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, ফাঁকা মাঠে নয়, খেলেই তিনি গোল দিতে চান।

সংবাদ সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী কামাল। তিনি বলেন, ‘খায়রুজ্জামান লিটন রাজশাহী শহরকে বদলে দিয়েছেন। তাঁর অসমাপ্ত কাজগুলো শেষ করতে তাঁকে মেয়র হিসেবে আবারও দরকার। এ জন্য তাঁকেই প্রার্থী হিসেবে বেছে নেওয়া হয়েছে। আমরা এ কারণে উচ্ছ্বসিত।’

সংবাদ সম্মেলনে খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, ‘আমার সব সিদ্ধান্ত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপরেই ছেড়ে দিয়েছিলাম। তিনি আমাকে প্রার্থী করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। মনোনয়ন বোর্ডের সভা শেষে তাঁর সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তিনি আমাকে জিতে আসতে বলেছেন। গত পাঁচবছরে যেভাবে রাজশাহীর উন্নয়ন করেছি, মানুষের সেবা করেছি তাতে নগরবাসী আমাকে আবারও নির্বাচিত করবেন। সেই বিশ্বাস শহরের মানুষের প্রতি আমার আছে।’

মেয়র প্রার্থী হতে মহানগর আওয়ামী লীগের আরো দুই নেতা দলীয় মনোনয়নপত্র তুলেছিলেন। তারা হলেন- সহসভাপতি মাহফুজুল আলম লোটন ও সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার। তাদের এই সংবাদ সম্মেলনে দেখা যায়নি।

দলীয় মনোনয়ন নিয়ে ভেদাভেদ ভুলে সবাইকে নৌকার জন্য কাজ করার আহ্বান জানিয়ে খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, ‘প্রত্যাশা যে কারোর থাকতেই পারে। তবে প্রার্থী ঠিক করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। কারো এখন নৌকার বিরোধিতা করা উচিত হবে না। আমি চাই, সবাই এক হয়েই কাজ করবেন।’

সংবাদ সম্মেলনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য বেগম আখতার জাহান, নগর আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মোজাফফর হোসেন, বর্তমান সহসভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা নওশের আলী, অধ্যক্ষ শফিকুর রহমান বাদশা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। পরিচালনা করেন নগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আহসানুল হক পিন্টু।

এর আগে ২০০৮ থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত রাজশাহীর মেয়র ছিলেন এএইচএম খায়রজ্জামান লিটন। ২০১৮ সালে পুনরায় নির্বাচিত হন। এরপরই পাল্টে দেন পুরো রাজশাহীর দৃশ্যপট।

এই সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: সিসা হোস্ট